1. admin@somoyerpoth.com : somoyerpoth.com :
বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ০৭:২৬ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
সিলেটে ধর্ষনের অভিযোগে টিকটক মান্না গ্রেফতার নানা আয়োজনে পালিত হলো গুইমারা উপজেলা পরিষদের ৬ষ্ঠ প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী মাটিরাঙ্গায় বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল হাসেম সড়কের শুভ উদ্বোধন। সিলেটের বিএনপির সমাবেশে বক্তব্য দিলেন না আরিফ-মুক্তাদির লায়ন মোঃ নূরল ইসলাম, নড়াইল জেলা ও লোহাগড়া উপজেলা আওয়ামী লীগ বঙ্গবন্ধুর মাজার যিয়ারত করেন। দলীয় কার্যালয়ে মনোনয়ন জমা দিলেন উজানগ্রাম ইউপি’র কান্ডারী সানোয়ার মোল্লা বিআরবি গ্রুপের চেয়ারম্যান মজিবর রহমানকে সংবর্ধনা প্রদান সিলেট জেলার ৩য় ধাপের ১৬ টি ইউপির নির্বাচনী ফলাফল প্রতীক বরাদ্দের আগেই ইচ্ছে মত প্রচারণা সিলেটে পরকিয়ার জেরে হত্যার অভিযোগে নারীসহ দুজনের মৃত্যুদন্ড

মানব বন্ধনঃ চট্টগ্রাম বন্দর উইন্সম্যান শিপ ক্রেন অপারেটর কল্যান বহুমুখী সমবায় সমিতি

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশিত: বুধবার, ২৭ অক্টোবর, ২০২১
  • ১২৪ বার পড়া হয়েছে

মানব বন্ধনঃ চট্টগ্রাম বন্দর উইন্সম্যান শিপ ক্রেন অপারেটর কল্যান বহুমুখী সমবায় সমিতি

চট্টগ্রাম জেলা প্রতিনিধি : আরিফুল ইসলাম

চট্টগ্রাম বন্দর বার্থ অপারেটর, টার্মিনাল অপারেটর এন্ড শিপ হ্যান্ডলিং অপারেটর এর অধিনে কর্মরত উইন্সম্যান শিপ ক্রেন অপারেটর শ্রমিকদের কর্ম সমবন্টন ও গ্রাচুইটি বাস্তবায়নের দাবিতে চট্টগ্রাম বন্দর উইন্সম্যান শিপ ক্রেন অপারেটর কল্যান বহুমুখী সমবায় সমিতি,রেজি নং ৯৭০৪ এর সভাপতি মোঃ বেলাল হোসাঈন এর সভাপতিত্বে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সামনে মানববন্ধন পালন করা হয়।

উক্ত মানব বন্ধনের কর্মসূচিতে সভাপতির বক্তব্যে জনাব বেলাল হোসাঈন বলেনঃ চট্টগ্রাম বন্দর কতৃপক্ষ ও বার্থ অপারেটর টার্মিনাল এন্ড শিপ হ্যান্ডলিং অপারেটর মালিকদের দৃষ্টি আকরষন করে বলেন,

আমরা চট্টগ্রাম বন্দর বার্থ টার্মিনাল ও শিপ হ্যান্ডলিং অপারেটর এর অধিনে কর্মরত উইন্সম্যান শিপ ক্রেন অপারেটর শ্রমিকগন মাসিক বেতন ভুক্ত কর্মচারী নয়।
ইন হাউজ কোম্পানি গুলোতে প্রতিমাসে ২৭,২৮ দিন ডিউটি হয়।
বাংলাদেশ শিপ হ্যান্ডলিং এসোসিয়েশন এর অধিনে ২৭ কোম্পানি গুলোতে মাসে ১০ থেকে ১২ দিন হারে ডিউটি হয়,যাদের ডিউটি কম হয় তাদের পরিবার পরিজন নিয়ে দুঃখ কষ্টে মানবতর জীবনযাপন করছে তাই বিষয়টি নিয়ে কর্মরত উইন্সম্যান ক্রেন অপারেটর শ্রমিকদের মনে চরম হতাশা বিরাজমান।
এই সময়ে তিনি আরো বলেনঃ

আমরা ২০০৭ ইং হইতে বিভিন্ন মহামারি দুর্যোগকালীন সময়ে প্রানের নিরাপত্তার কতা না ভেবে বন্দরকে সচল রেখেছি, কিন্তু আমরা বিভিন্ন সুযোগ -সুবিধা থেকে বাদ পড়েছি।
সুযোগ -সুবিধার মধ্যে প্রধান গ্রাচুইটি, ইতিমধ্যে আমাদের ৬ জন অপারেটর মৃত্যুবরণ করেছেন। তাদের পরিবারে এখনো কোন গ্রাচুইটি প্রধান করা হয় নাই।
গ্রাচুইটি চালু না থাকায় সার্ভিস শেষে কেহই অব্যাহতি গ্রহণ করতে পারছেন না।
তাই কর্ম সমবন্টন ও বন্দরের সার্কুলার অনুযায়ী উইন্সম্যানদের তথ্য ফরম বন্দর করতৃপক্ষ নিকট প্রেরণ করে তাদের দাবি সমুহ সহায়তা চান।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

আরো লেখাসমূহ

ওয়েবসাইট ডিজাইন প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত